1. recentnews19@gmail.com : News Desk :
  2. moinul129@gmail.com : mohin :
  3. editormuktinews24@gmail.com : Melon parvez : Melon parvez
বুধবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২০, ০৬:৪৬ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
সরকার পার্বত্য চট্টগ্রামসহ দেশের সর্বত্র শান্তি বজায় রাখতে বদ্ধপরিকর : প্রধানমন্ত্রী বিটিসিএলকে টেলিযোগাযোগ সেবা সম্প্রসারণের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর  সুবর্ণচরে ভূমি খোরদের বিরুদ্ধে হাজার ভূমিহীনদের মানববন্ধন  বিরামপুর সরকারি কলেজের শিক্ষক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক আলমগীর ফারিয়ার ফেসবুক থেকে বিরতি পার্বতীপুরে মাস্ক না পরায় ১২০ জনকে জরিমানা পিতৃকালীন ছুটি নিয়ে কোহলিকে কটাক্ষ গাভাসকরের, খোঁচা দিলেন অনুষ্কাকেও ভ্যাকসিন অনুমোদনের আবেদন করেছে মডার্না ভাস্কর্য থাকা না থাকার ইজারা মৌলবাদীদের দেয়নি জনগণ’ বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল ফজল মাস্টারের মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক

চিলাহাটি সীমান্তের রেললাইন পরিদর্শনে রেলমন্ত্রী

  • প্রকাশ : শনিবার, ১৪ নভেম্বর, ২০২০, ৫.৫৪ পিএম
  • ৩ বার

এমএন২৪.কম ডেস্ক : নীলফামারী জেলার ডোমার উপজেলার সীমান্তবর্তী এলাকা চিলাহাটি ও হলদিবাড়ি রেলপথে ভারতের সঙ্গে সরাসরি রেল যোগাযোগ সংযোগ করা হয়েছে। এবং ইতিপূর্বেই দুই দেশের রেলওয়ে ইঞ্জিন ট্রায়াল রান করা হয়েছে। দীর্ঘ প্রতীক্ষার পর বাংলাদেশের চিলাহাটি থেকে ভারতের হলদিবাড়ি পর্যন্ত রেল যোগাযোগের লক্ষে রেললাইন বসানোর কাজটি সম্পূর্ন করে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ম্যাক্স ইনফ্রাসট্রাকচার লিমিটেড। হস্তানতরের পূর্বেই রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন, এমপি শনিবার সকাল ১১ টায় চিলাহাটি রেলস্টেশনের পাশে নবনির্মিত রেস্ট হাউজের সামনে গার্ড অফ অনার গ্রহন করে, স্টেশন প্লাটফর্মের পাশে নতুন প্লাটফর্মের ভিত্তি প্রস্তর কাজ শেষ করে বাংলাদেশ রেল বিভাগের গ্যাং ইঞ্জিনে বসে চিলাহাটি রেলস্টেশন থেকে সীমান্ত এলাকা পরিদর্শনে যান।

সেখানে সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে নীলফামারী জেলার সাংবাদিক ও প্রিন্ট মিডিয়া সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন। উত্তরে মন্ত্রী বলেন,“আগামি ডিসেম্বর বিজয়ের মাসেই চিলাহাটি-হলদিবাড়ি ট্রেন চলাচল করবে। এবং এই এলাকার মানুষের দাবি স্থলবন্দরের কার্যক্রম চালু করা সেদিকেও আমাদের দৃষ্টি আছে”। রেলমন্ত্রী দীর্ঘ সময় সীমান্ত এলাকায় অবস্থানকালে তিনি বিভিন্ন ব্যক্তিদের প্রশ্নের উত্তর দেন। মন্ত্রী সীমান্ত এলাকা ত্যাগ করার পূর্বে ভারতীয় ৬৫ বিএসএফ ডাঙ্গাপাড়া কোম্পানী কমান্ডারের সাথে কুশল বিনিময় করেন। অবশেষে তিনি রেলের সার্বিক বিভিন্ন কাজের অগ্রগতি দেখে পুনরায় গ্যাং ইঞ্জিনে বসে চিলাহাটি রেলস্টেশনে আসে। গ্যাং ইঞ্জিনের সঙ্গে একটি ব্যাংকার টলী ছিল। সেখানে রেল বিভাগের উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ সহ স্থানীয় আওয়ামীলীগের নেতা-কর্মীরাও সীমান্ত এলাকার ভ্রমনে যান। মন্ত্রীর সফর সঙ্গি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, নীলফামারী জেলা প্রশাসক হাফিজুর রহমান চৌধুরী, ডোমার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহিনা শবনম, সার্কেল এস.পি. জয়ব্রত পাল, ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল মালেক, ডিভিশনাল রেলওয়ে ম্যানেজার শাহিদুল ইসলাম, প্রকল্প পরিচালক আব্দুর রহিম, বিভাগীয় পরিবহন কর্মকর্তা নাছির উদ্দিন, সহকারী নির্বাহী প্রকৌশলী আহসান উদ্দিন, নীলফামারী ৫৬ বিজিবির অধিনায়ক লে.কর্নেল মামুনুল হক মামুন সহ ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ম্যাক্স এর উর্ধতন কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।

সামাজিক যোগাযোগে শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরীর আরও খবর
themesbazarmuktin141