1. recentnews19@gmail.com : News Desk :
  2. moinul129@gmail.com : mohin :
  3. editormuktinews24@gmail.com : Melon parvez : Melon parvez
বুধবার, ২১ অক্টোবর ২০২০, ০১:০৯ অপরাহ্ন

পার্বতীপুরে উদ্ধার হওয়া তরুনীর লাশ রংপুর কারমাইকেল কলেজ ছাত্রীর। মৃত্যুর ঘটনায় কথিত প্রেমিক সহ ৩ জন গ্রেফতার ( ফলোআপ)

  • প্রকাশ : বুধবার, ৭ অক্টোবর, ২০২০, ৮.২৯ পিএম
  • ১৩২ বার

তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় গতকাল মঙ্গলবারই দিনাজপুরের পার্বতীপুরে উদ্ধার হওয়া অজ্ঞাত পরিচয় তরুনীর লাশের পরিচয় শনাক্ত করেছে পুলিশ। উদ্ধার হওয়া তরুনী রুখিয়া রাউত (২৩), রংপুর কারমাইকেল কলেজের ইতিহাস বিভাগের অনার্স শেষ বর্ষের ছাত্রী। সে রংপুরের বদরগঞ্জ উপজেলার রামনাথপুর ইউনিয়নের মিশনপাড়ার আদিবাসী নৃ-গোষ্ঠির দিনেশ রাউতের মেয়ে। এদিকে, রুখিয়া রাউত পরিবারের দেয়া তথ্যের সূত্র ধরে তার মৃত্যুর জন্য দায়ী কথিত প্রেমিক আনিছুর রহমানসহ তিনজনকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয় পার্বতীপুর মডেল থানা পুলিশ। তারা হলো- রংপুরের বদরগঞ্জ উপজেলার, রামনাথপুর ইউনিয়ানের খোদ্দ বাগবাড় গ্রামের আব্দুর রউফের ছেলে সবজি ব্যবসায়ী আনিছুর রহমান(২৩), একই গ্রামের বাচ্চুর ছেলে ভ্যান চালক রাজ(২৬) ও পার্বতীপুর উপজেলার পলাশবাড়ী ইউনিয়ানের শালবাড়ি আটরাই গ্রামের জয়নালের ছেলে কাঁচামাল ব্যবসায়ী আশিকুজ্জামান(৩০)। এদিকে, রুখিয়া রাউতের রহস্য জনক মৃত্যুর ঘটনায় হরিরামপুর ইউনিয়ন গ্রাম পুলিশ আব্রাহাম মিনজি বাদী হয়ে গত মঙ্গলবার বিকেলে পার্বতীপুর মডেল থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।
পুলিশ জানায়, এ ঘটনায় অভিযুক্ত আনিসুর রহমানের সাথে রুখিয়া রাউতের প্রেমের সর্ম্পক ছিল। সম্প্রতি আনিছুরের অন্যত্র বিয়ে করার খবর জানতে পেরে তার সঙ্গে রুখিয়া রাউতের সর্ম্পকে তীক্ততার সৃষ্টি হয়। গত সোমবার বিকেলে আনিছুর রহমান তার দূর সর্ম্পকের দুলাভাই আশিকুজ্জামানের মাধ্যমে মোবাইল ফোনে রুখিয়া রাউতকে ডেকে নিয়ে তারা ইজি বাইকে রাস্তায় বের হয়। বাড়ি থেকে রওনা হওয়ার আগে রোখিয়া তার মাকে জানান, একদিনের জন্য সে রংপুরে বান্ধবীর বাসায় যাচ্ছে। এর পরদিন পার্বতীপুরের মধ্যপাড়া-মিঠাপুকুর সড়কের পাঁচপুুকুরিয়া এলাকায় সড়কের পাশের্^ জঙ্গল থেকে রুখিয়া রাউতকে ওড়না দিয়ে দুই হাত, ডান পা গলার সাথে বাধা অবস্থায় মৃত উদ্ধার করা হয়। তার পিতা দিনেশ রাউতের অভিযোগ আনিছুর রহমান তার মেয়েকে দীর্ঘদিন ধরে উত্যক্ত করত।

আজ বুধবার বিকালে গ্রেফতারকৃতদের দিনাজপুর সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে হাজির করা হলে তারা ১৬৪ ধারা স্বীকারোক্তি মূলক জবান বন্দি দেয়। আদালতের নির্দেশে পরে তাদের দিনাজপুর জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে বলে পার্বতীপুর মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সোহেল রানা জানান।

সামাজিক যোগাযোগে শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরীর আরও খবর
themesbazarmuktin141