মঙ্গলবার-২৭শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ-১২ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ,-সকাল ১১:২১

Reg No-36 (তথ্য মন্ত্রনালয় কর্তৃক নিবন্ধনকৃত)

শিরোনামঃ তিন মিনিটে স্বর্ণ জয় নোরার চীনকে টপকে শীর্ষে জাপান এলিমিনেশন রাউন্ডে রুদ্ধশ্বাস জয় পেলেন রোমান সানা অলিম্পিকে অ্যাথলিটরা মাস্ক খোলার অনুমতি পেলেন কুষ্টিয়া হাসপাতালে আরও ১৯ জনের মৃত্যু শেবাচিমের করোনা ওয়ার্ডে আরও ১৬ জনের মৃত্যু নারকেল তেলের ৫টি জরুরি ব্যবহার

সুজানগরে শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধার ওয়ারিশগণ সম্মানী ভাতা থেকে বঞ্চিত

প্রকাশ: সোমবার, ১৯ জুলাই, ২০২১ , ২:০৮ অপরাহ্ণ , বিভাগ :

সুজানগর (পাবনা) প্রতিনিধি ঃ পাবনার সুজানগরে মহান স্বাধীনতা যুদ্ধে একমাত্র শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধা মোস্তফা কামাল দুলালের ওয়ারিশগণ দীর্ঘদিন সম্মানী ভাতা থেকে বঞ্চিত রয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন শহীদ দুলালের ছোট বোন সাইফুন রহমান পারুল।
সুজানগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর দেয়া ওই অভিযোগ থেকে জানা যায়, উপজেলার ভবানীপুর গ্রামের ডাঃ এএম সলিম উল্লাহর বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়–য়া (অবিবাহিত) ছেলে উক্ত মোস্তফা কামাল দুলাল ১৯৭১সালে দেশ মাতৃকার টানে মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশ নেন। উপজেলার বিভিন্ন স্থানে তিনি পাকসেনাদের সাথে বীরদর্পে যুদ্ধ করেন। এরই এক পর্যায়ে ১৯৭১সালের ১২ডিসেম্বর তৎকালীন সুজানগর পুলিশ স্টেশনের পাশে মুক্তিযোদ্ধা ও পাকসেনাদের মধ্যে সম্মুখ যুদ্ধ চলাকালে মোস্তফা কামাল দুলাল পাকসেনাদের গুলিতে শহীদ হন। তার এ সংক্রান্ত গেজেট পৃষ্ঠা নং ৯৬৭১ তারিখ ০৬-০৯-২০০৩, গেজেট নং ২৫৮২ এবং বিশেষ গেজেট মুক্তি বার্তা নং ০৩১১০৬০১৬৬। তিনি শহীদ হওয়ার পর প্রথমে তার বাবা আর বাবা মারা যাওয়ার পর তার মা সায়রা বেগম শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধা সম্মানী ভাতা পেতেন। কিন্তু ২০১০সালের ২৫ফেব্রুয়ারী উক্ত সায়রা বেগম মারা যাওয়ার পর থেকে তার এক ভাই ও তিন বোন ওই সম্মানী ভাতা থেকে বঞ্চিত রয়েছেন। সর্বশেষ সরকারি প্রজ্ঞাপন অনুযায়ী কোন অবিবাহিত ব্যক্তি মুক্তিযুদ্ধে শহীদ হলে তার বাবা-মা বেঁচে থাকলে প্রথমে বাবা-মা এবং বাবা-মা মারা যাওয়ার পর বৈধ ওয়ারিশগণ শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধা সম্মানী ভাতা পাবেন। সে অনুযায়ী শহীদ মোস্তফা কামাল দুলালের বাবা-মা মারা যাওয়ার পর তার ওই চারজন ওয়ারিশ শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধা সম্মানী ভাতা পাওয়ার কথা। কিন্তু অজ্ঞাত কারণে ওয়ারিশগণ দীর্ঘদিন সম্মানী ভাতা থেকে বঞ্চিত রয়েছেন। তবে উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার আব্দুল মজিদ সরদার বলেন ভাতা বঞ্চিত হওয়ার বিষয়টি সঠিক নয়। আমার জানামতে উক্ত প্রজ্ঞাপন জারির কিছুদিন পর থেকে শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধা মোস্তফা কামাল দুলালের ওয়ারিশ তার বড় বোন নূর জাহান বেগম জোছনা প্রতি মাসে অগ্রণী ব্যাংক থেকে ওই সম্মানী ভাতা উত্তোলন করেন। এ ব্যাপারে জানতে উক্ত জোছনার মোবাইলে ফোন করা হলে তিনি ফোন রিসিভ করেননি। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ রওশন আলী বলেন এ সংক্রান্ত দরখাস্ত পেয়েছি। বিষয়টি খতিয়ে দেখে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


রাজশাহী,সারাদেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ


_