তথ্য মন্ত্রনালয় কর্তৃক নিবন্ধনকৃত, যার রেজি নং-৩৬

সোমবার, ১৫ অগাস্ট ২০২২, ০৪:০৪ পূর্বাহ্ন
সদ্য সংবাদ :
ব্যবসা-বাণিজ্য এবং আর্থিক শৃঙ্খলার জন্য অডিট রিপোর্ট সঠিক হওয়া প্রয়োজন                                                                           — বাণিজ্যমন্ত্রী ঘাতকচক্র বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করলেও তার আদর্শের মৃত্যু ঘটাতে পারেনি ৪০ দিনেই ৪০ কোটি টাকার বেশি খাজনা আদায় লালমনিরহাটে সাংবাদিকদের উপরে হামলার ঘটনায় প্রাধান আসামি গ্রেপ্তার  আটোয়ারীতে বিদ্যুৎ স্পৃষ্টে কলেজ ছাত্রের মৃত্যূ পিরোজপুরে র‌্যাবের অভিযানে এক যুবকে গ্রেপ্তার মৌলভীবাজারে ডিমের দোকানে ভোক্তার অভিযান, ৩টিতে জরিমানা দুর্গাপুরে সোমেশ্বরী নদী থেকে অজ্ঞাত যুবতীর লাশ উদ্ধার খানসামা উপজেলায় প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিদর্শনে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার আগামী মাসে সমন্বয় করা হবে তেলের দাম, থাকবে না লোডশেডিং

বুস্টার ডোজ কারা কীভাবে কবে পাবেন?

  • প্রকাশ রবিবার, ১৯ ডিসেম্বর, ২০২১, ১২.১৮ পিএম
  • ৩১ বার ভিউ হয়েছে

মুক্তিনিউজ২৪.কম ডেস্ক: আজ রোববার (১৯ ডিসেম্বর) থেকে করোনাভাইরাস নিয়ন্ত্রণে করোনা টিকার বুস্টার ডোজ প্রদান শুরু হচ্ছে। বুস্টার ডোজের জন্য ফের নিবন্ধন করা লাগবে না। পূর্বের নিবন্ধন থেকেই ডাক পড়বে এই ডোজের জন্য। প্রথমে এ টিকা পাবেন সম্মুখসারির ব্যক্তিরা (চিকিৎসক, নার্স, সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারী, গণমাধ্যমকর্মী ও ষাটোর্ধ্ব ব্যক্তি)। এরপর ধাপে ধাপে অন্যরা।

 

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্যমতে, যারা টিকার দুই ডোজ নিয়েছে, পর্যাক্রমে তারা বুস্টার ডোজ পাবে। এ জন্য পুনরায় সুরক্ষা অ্যাপে নিবন্ধন করতে হবে না।

 

কারা পাবে বুস্টার ডোজ?
দেশে বুস্টার ডোজ কার্যক্রম শুরুর আগে থেকেই সরকার বলে আসছে শুরুর দিকে টিকা গ্রহণ করেছেন এমন সিনিয়র সিটিজেন যারা আছেন, তাদের সুরক্ষার জন্যই বুস্টার ডোজ শুরু করা হবে। যদিও শতভাগ মানুষ টিকার আওতায় না আসা পর্যন্ত বুস্টার ডোজে দ্বিমত ছিল বেশ কিছু বিশেষজ্ঞের।

 

এসব বিষয়ে অধ্যাপক ডা. সেব্রিনা ফ্লোরা বলেন, বুস্টার ডোজের ক্ষেত্রে প্রাথমিকভাবে আমরা অগ্রাধিকার দিচ্ছি ষাটোর্ধ ব্যক্তিদের এবং চিকিৎসক-নার্স, পুলিশ প্রশাসন, সাংবাদিকসহ সম্মুখসারির করোনাযোদ্ধাদের। এছাড়া যারা সংক্রমণের আশঙ্কায় রয়েছে, বিশেষ করে যাদের জটিলতার শঙ্কা বেশি, মৃত্যু ঝুঁকি বেশি, তাদেরকে।

 

তিনি বলেন, এর আগে আমরা যখন টিকা দেওয়া শুরু করেছিলাম তখনও কিন্তু পর্যায়ক্রমে গিয়েছি। বুস্টার ডোজের ক্ষেত্রেও আমরা এমনটি করব। কিন্তু প্রাথমিকভাবে যারা ষাটোর্ধ এবং যারা সম্মুখসারির, তাদেরকেই আমরা দিব।

 

কীভাবে বুস্টার ডোজ নিবেন?

 

বুস্টার ডোজ কীভাবে নেওয়া যাবে, আবেদন প্রক্রিয়া কী হবে- এমন প্রশ্নের জবাবে স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক বলেন, বুস্টার ডোজ টিকা নিতে হলে কাউকে কোনো আবেদন করতে হবে না। যেসব কেন্দ্রে প্রথম ও দ্বিতীয় ডোজের টিকা নিয়েছেন, এমনকি যাদের টিকার সময়সীমা ছয় মাস পেরিয়েছে, তাদেরকে সেসব কেন্দ্র থেকে তৃতীয় ডোজের জন্য এসএমএস দেওয়া হবে। এরপর ওই ব্যক্তি নির্ধারিত টিকা কেন্দ্রে এসে এসএমএস দেখিয়ে বুস্টার ডোজ নিতে পারবেন।

 

তিনি আরও বলেন, যারা প্রথম ও দ্বিতীয় ডোজ টিকা নিয়েছেন তারা কিন্তু আমাদের সুরক্ষা অ্যাপে রেজিস্টার্ড, এমনকি তাদের সকল তথ্য আমাদের কাছে সংরক্ষিত রয়েছে। আমরা আবারও স্পষ্ট করে বলছি, তাদেরকেই আমরা তৃতীয় ডোজ দিবো, যাদের দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার ছয় মাস পূর্ণ হয়েছে।

 

সেব্রিনা ফ্লোরা বলেন, এই মুহূর্তে তাদের বুস্টার ডোজ দেওয়া হচ্ছে, যাদের ছয় মাস পূর্বে অধিকাংশই অক্সফোর্ড অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা পেয়েছিল। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অনুমোদন অনুযায়ী তৃতীয় ডোজের টিকাটি আমরা যেকোনো টিকাগ্রহীতাকে দিতে পারি। প্রথম এবং দ্বিতীয় ডোজ আমরা যেভাবে দিয়ে আসছিলাম বুস্টার ডোজও সেভাবে দেওয়া হবে। এখানে মিক্সার ডোজের বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি।

 

 

সারাদেশে কবে থেকে বুস্টার ডোজ শুরু হবে?

 

দেশে আনুষ্ঠানিকভাবে বুস্টার ডোজ কার্যক্রম শুরু হলেও আপাতত শুধুমাত্র রাজধানীর কয়েকটি কেন্দ্রে শুরু হচ্ছে। তবে পর্যায়ক্রমে সারাদেশেই বুস্টার ডোজ টিকা সম্প্রসারিত করা হবে।

 

ডা. ফ্লোরা বলেন, টিকা নিবন্ধন ও তথ্য সংরক্ষণের মাধ্যম হলো সুরক্ষা অ্যাপ। কিন্তু বুস্টার ডোজের বিষয়ে সুরক্ষা অ্যাপ এখনও প্রস্তুত হয়নি। এখনও কাজ চলছে। অ্যাপের কাজ ঠিকমতো না হওয়া পর্যন্ত গ্রাম পর্যায়ে বুস্টার ডোজ দেওয়া যাচ্ছে না।

 

তিনি বলেন, আশা করছি সপ্তাহ খানেকের মধ্যেই সুরক্ষা অ্যাপ প্রস্তুত হয়ে যাবে। এরপরই আমরা সারাদেশে বুস্টার ডোজ টিকা দিতে পারব। ইতোমধ্যে বুস্টার ডোজ যেন সারাদেশের মানুষ পায়, সেজন্য আমরা বিস্তারিত পরিকল্পনা তৈরি করছি।

 

বুস্টার ডোজে কোন টিকা দেওয়া হবে, কারা নিতে পারবে?

 

বুস্টার ডোজের ঘোষণা আসার পরই যে বিষয়টি বেশি আলোচিত হচ্ছে তা হলো, বুস্টার ডোজে কোন টিকা দেওয়া হবে এবং যেকোনো টিকা নেওয়া ব্যক্তিই কী বুস্টার ডোজের নির্ধারিত টিকা নিতে পারবে?

 

এসব বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের এই কর্মকর্তা বলেন, বুস্টার ডোজ হিসেবে ফাইজারের টিকায় দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। দুই কারণে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। প্রথমত, এই মুহূর্তে পর্যাপ্ত পরিমাণ ফাইজারের টিকা আমাদের হাতে রয়েছে। দ্বিতীয়ত, যেহেতু অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার তৃতীয় ডোজে ফাইজার টিকা নিতে কোনো টেকনিক্যাল বাধা নেই, তাই আমরা ফাইজার দিচ্ছি।

 

ডা. সেব্রিনা বলেন, আপনারা জানেন শুরুতে আমাদের ফাইজারের টিকা বেশি দেওয়ার সক্ষমতা ছিল না। পর্যায়ক্রমে আমরা পর্যাপ্ত টিকা ব্যবস্থা করেছি। দেশের ৬৪ জেলাতে ফাইজারের টিকা পৌঁছে দিয়েছি। কোনো কোনো জায়গায় উপজেলা পর্যায়েও এই টিকা দেওয়া শুরু হয়েছে।

 

বুস্টার ডোজের সার্টিফিকেট দেওয়া হবে কি না- জানতে চাইলে তিনি আরও বলেন, বুস্টার ডোজেরও সার্টিফিকেট দেওয়া হবে। তবে বুস্টার ডোজ এখন নিলেও সার্টিফিকেট পেতে অপেক্ষা করতে হবে।

 

শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও সংবাদ
© All rights reserved © 2022 Muktinews24.com © এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব www.muktinews24.com কর্তৃক সংরক্ষিত.
Technical Support Moinul Islam